in , ,

জি বাংলার মহালয়া তে জায়গা না পেলেও ফটোশুটের মাধ্যমেই দেবী কামেশ্বরী রূপে সেজে উঠল সকলের প্রিয় অভিনেত্রী তন্নী লাহা রায়

পুজো প্রায় দোরগোড়ায়। হাতে আর ১০ থেকে ১৫ দিন মত সময়। এর মধ্যে সেরে ফেলতে হবে সমস্ত কেনাকাটা। চারিদিকে এখন আকাশে বাতাসে পুজোর গন্ধ। তার আগেই আসবে মহালয়া। ইতিমধ্যেই বিভিন্ন চ্যানেল থেকে মহালয়ার প্রমো ভিডিওগুলি আমরা দেখে নিয়েছি। এবছর স্টার জলসা মহালয়া মহিষাসুরমর্দিনী রূপে দেখা যাবে অভিনেত্রী সোনামনি সাহাকে এবং জি বাংলার মহিষাসুরমর্দিনী হিসেবে দেখা যাবে জনপ্রিয় টলিউডের অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলিকে। এছাড়াও দেবীর বিভিন্ন রূপে দেখা যাবে জি বাংলারই বিভিন্ন ধারাবাহিকের নায়িকাদের। সে ক্ষেত্রে বিশেষ কোনো জায়গা পায়নি খলনায়িকারা। জি বাংলা মহালয়ার কোন দেবী রূপে দেখা যায়নি কোন খলনায়িকা কে।

তবে এবারে সোশ্যাল মিডিয়ায় দেবীর একটি রূপে সেজে উঠে দারুন ভাইরাল হলেন অভিনেত্রী তন্বী লাহা রায়। অর্থাৎ সকলের প্রিয় মিঠাই ধারাবাহিকের ট্যাস বুড়ি। ধারাবাহিকে মিঠাইয়ের শত্রু তবে বাস্তবে তাকে অনেক মানুষ ভালোবাসেন। অসংখ্য ফ্যান রয়েছে তন্বীর। অভিনয়ের পাশাপাশি বিভিন্ন ফটোশুট চলতে থাকে তার। আর সোশ্যাল মিডিয়াতে দারুন অ্যাক্টিভ থাকেন অভিনেত্রী। হামেশাই বিভিন্ন ছবি ভিডিও আপলোড করতেই থাকে নিজের ইনস্টাগ্রাম একাউন্ট থেকে। সেরকমই একটি ভিডিও আপলোড করেছেন নিজের ইনস্টাগ্রাম পেজে।

সম্প্রতি তন্নী একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন যেখানে তাকে দেখা যাচ্ছে দেবী কামেশ্বরী রূপে। ভিডিওতে অভিনেত্রীকে সম্পূর্ণ লাল রঙের একটি শাড়ি, স্লিভলেস ব্লাউজ, খোলা চুল, গায়ে সোনার গয়না, মাথায় সিঁদুর, হাতে আলতা, কপালে লাল টিপ পড়ে দেখা গিয়েছে। ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন ‘কামেশ্বর কামেশ্বরী’। পেছনে এক ব্যক্তিকে শিব রূপে দেখা গিয়েছে। ব্যাকগ্রাউন্ড দেখেই বোঝা যাচ্ছে কোন একটি ফটোশুটের জন্যই এমন রূপে সেজেছেন অভিনেত্রী। আর অভিনেত্রীর এই ভিডিওটি শেয়ার করা মাত্রই অসংখ্য দর্শক ভিডিওটি লাইক করেছেন এবং কমেন্টে অভিনেত্রীর প্রশংসা জানিয়েছেন।

Today Post

What do you think?

165 Points
Upvote Downvote

“প্রোমো দেয় না, বিরক্তিকর গল্প” – টিআরপি লিস্ট সামনে আসতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্ষোভ উগরে দিচ্ছেন মিঠাই ভক্তরা! বেঙ্গল টপারের থেকে এখন প্রথম তিনেও জায়গা না পাওয়াতে লেখিকা থেকে চ্যানেল সবার প্রতি ক্ষুব্ধ দর্শক

বঙ্গ সেরা এবার গাঁটছড়া, অন্যদিকে প্রথম তিনে নেই মিঠাইয়ের নাম! হারালো স্লট লিডিং এর স্থানটুকুও! অন্যদিকে স্লটলিড করছে সাহেবের চিঠি